২০ লাখ টাকা ফিরিয়ে দিলেন রিকশা চালক

বিশ লাখ টাকা পেয়েও মালিককে ফেরত দিলেন বগুড়ার মালগ্রাম মধ্যপাড়ার রিকশাচালক লালমিয়া। শুক্রবার সকাল ৭টায় বগুড়া শহরের জলেশ্বরীতলা থেকে সার ব্যবসায়ী রাজীব প্রসাদ রিকশাযোগে সাতমাথায় নামেন।

এসময় তার কাছে থাকা ব্যাগপত্রের মধ্যে ২০ লাখ টাকার একটি ব্যাগ ভুলে রিকশায় ফেলে চলে যান। পরে মনে হলে তিনি রিকশাচালককে খুঁজে না পেয়ে থানায় অভিযোগ করেন।

থানা পু’লিশ খবর পেয়ে রিকশাচালককে খোঁজ করতে থাকে। অন্যদিকে টাকার ব্যাগ পাওয়া রিকশাচালক শহরের মালগ্রাম মধ্যপাড়ার মৃত মমতাজ উদ্দিনের ছেলে লাল মিয়াও শহরের বিভিন্ন স্থানে টাকার মালিককে খুঁজতে থাকেন।

টাকার মালিককে না পেয়ে লাল মিয়া টাকাগুলো বাড়িতে রেখে আবারো টাকার মালিক রাজীব প্রসাদকে খুঁজতে থাকেন।

এক পর্যায়ে থানা পুলিশ মোবাইলে যোগাযোগ করলে লাল মিয়া জানায় টাকাগুলো তার বাড়িতে হেফাজতে আছে। পরে বাড়িতে গিয়ে পুলিশ টাকাগুলো উদ্ধার করে পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভুঞার উপস্থিতিতে মালিকের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

পুলিশ সুপার আরও জানান, খোঁজ করার এক পর্যায়ে বেলা ১১ টার সময় টাকাগুলো উদ্ধার করার পর মালিকের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

টাকার মালিক রাজীব প্রসাদ জানান, তিনি টাকাগুলো রোববার সকালে সার কেনার জন্য পাঠাতেন। সেই কারণে বৃহস্পতিবার ব্যাংক থেকে টাকাগুলো উত্তোলন করেছিলেন।

টাকা ফেরত পেয়ে খুশি হয়ে নতুন রিকশা কেনার জন্য চালককে ৫৪ হাজার টাকা ও একটি মোবাইল ফোনের টাকা দিয়ে বগুড়ার পুলিশ সুপারের মাধ্যমে লাল মিয়াকে পুরস্কৃত করেন।

Facebook Comments