ঢাকার শ্রমিকদের নিয়েই পোশাক কারখানা চালু : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন বলেছেন, ঢাকায় অবস্থানরত শ্রমিকদের নিয়েই পোশাক কারখানা চালু করা হচ্ছে।
স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ২৮ এপ্রিল পোশাক কারখানার মালিকদের সঙ্গে এক অনির্ধারিত বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘পোশাক কারখানার মালিকরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে ওয়াদা করেছেন যে, ঢাকায় যে সব শ্রমিক অবস্থান করছেন তাদেরকে দিয়েই তারা (মালিক)স্বাস্থ্যবিধি মেনে কারখানা চালু করবেন। সেই ভাবেই তারা কারখানা খুলছেন।’

তিনি বলেন, ‘কারখানা খুলতে গিয়ে তাদের (মালিকদের) কোনো অসুবিধা হচ্ছে কিনা, বা কী ধরনের অসুবিধা হতে পারে তা নিয়ে আজকে আমরা বসেছিলাম।

কারাখানাগুলোতে শ্রমিকদের আসা-যাওয়ার প্রয়োজন হবে। অনেক বাস্তবতার মুখে তাদের পড়তে হবে। সে সব নিয়ে আমরা দীর্ঘ আলোচনা করেছি। আমাদের আলোচনাটা অনির্ধারিত ও অফিসিয়াল ছিল না।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, মালিকরা বলেছেন গত মার্চ মাসের বেতন পুরোটাই দিয়ে দিবে। এছাড়া তারা প্রায় ৯৭ শতাংশ বা এর বেশি বেতন ইতোমধ্যে দিয়েছেন বলেও জানিয়েছেন।
তিনি বলেন , ‘এপ্রিল মাসের বেতন সরকার যেভাবে নির্ধারণ করে দিয়েছে এবং তাদের সঙ্গে যে বোঝা-পরামর্শ হয়েছে সেই অনুযায়ী তারা দিবে। এটি আমাকে নিশ্চিত করে গেছেন।’

তিনি বলেন, ‘শ্রমিকদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্যে তারা যে পরীক্ষাগার স্থাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন সেগুলো একটু তরান্বিত করার জন্যে আমরা নির্দেশ দিয়েছি। শ্রমিকরা যদি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয় তাহলে তাদের সুরক্ষার জন্যে তারা কী ব্যবস্থা নিয়েছে সেটাও আমরা শুনেছি।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বিদেশী অর্ডার রয়েছে বলে কিছু কারখানা খোলা দরকার মনে করছেন মালিকরা। তারা প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনাক্রমে কারখানা চালু করেছেন।

Facebook Comments