ইরান ও ইরাক দূতাবাস থেকে স্টাফ কমিয়েছে যুক্তরাজ্য

ইরান ও ইরাকে নিযুক্ত দূতাবাস থেকে স্টাফ কমিয়েছে যুক্তরাজ্য। মার্কিন হামলায় ইরানের শীর্ষ সামরিক নেতা নিহত হওয়ার পর চরম উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ার কারণে লন্ডন ওই দুই দেশের থাকা তাদের দূতাবাসের স্টাফের সংখ্যা কমিয়ে সর্বনিম্ন পর্যায়ে নিয়ে এসেছে। সোমবার স্কাই নিউজ একথা জানায়। খবর সিনহুয়ার।

কূটনৈতিক সূত্রের বরাত দিয়ে খবরে বলা হয়, কূটনীতিকদের প্রত্যাহার করে নেয়া হচ্ছে একটি সাবধানতামূলক পদক্ষেপ। হুমকির ব্যাপারে সুনির্দিষ্ট গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে এ সতর্কতামূলক পদক্ষেপ নেয়া হলেও তেহরানে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত রব ম্যাকাইর এবং বাগদাদে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত স্টিফেন হিকি তাদের পদে বহাল থাকবেন।

শুক্রবার বাগদাদ বিমানবন্দরের কাছে যুক্তরাষ্ট্রের এক বিমান হামলায় ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ডস বাহিনীর কুদস ফোর্সের কমান্ডার কাশেম সোলাইমানি নিহত হন।

সোলাইমানিকে হত্যা করায় ইরানের পক্ষ থেকে কঠোর সমালোচনা করা হয় এবং তারা এর প্রতিশোধ নেয়ার হুমকি দেয়। ফলে এ অঞ্চলে নিয়ন্ত্রণহীন উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পেয়েছে।

Facebook Comments